।। নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী ।।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম বলেছেন, আগামী নির্বাচনের পর বিএনপি-জামায়াতের চূড়ান্ত দাফন-কাফন সম্পন্ন হবে। দেশের মানুষের কাছ থেকে তারা চিরতরে হারিয়ে যাবে। বৃহস্পতিবার রাজশাহীর চারঘাট উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে স্থানীয় এই সংসদ সদস্য একথা বলেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, পঞ্চাশ বছর বয়সী বাংলাদেশের ইতিহাসে এখনও বেশিরভাগ সময় সরকার পরিচালনা করেছে সামরিক ও বেসামরিক স্বৈরাচার আর অগণতান্ত্রিক শক্তি। অথচ তাদের চেয়ে কম সময় সরকারে থেকেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ অভূতপূর্ব উন্নতি করেছে। কাজেই অন্তত আরও ৯ বছর আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় থাকার পর তুলনার প্রশ্ন আসবে।

তিনি বিএনপি-জামায়াতের উদ্দেশে বলেন, সেই ৯ বছর আপনারা সব মৃতদের দাফন কাফন সম্পন্ন করেন। ততোদিন ঘুমান। আল্লাহর কাছে মাফ চান। জনগণের কাছে ভুল স্বীকার করে ক্ষমা চান আপনাদের অতীতের অপকর্মের জন্য। এরপর রাজনীতি করতে আসেন।

শাহরিয়ার আলম দেশের বিভিন্ন ক্ষেত্রে ব্যয় সংকোচনের সমালোচনাকারীদের পাল্টা সমালোচনা করে বলেন, শেখ হাসিনা যখন ৬ বিলিয়ন ডলারের রিজার্ভকে ৪৫ বিলিয়ন ডলারে নিয়েছিলো, তখন কই ছিলেন? আর এখন যখন মাত্র ৬ বিলিয়ন কমেছে, তখন সেটা নিয়েই যত কথা! সারাবিশ্বে যে পরিস্থিতি সেটা আগে জানতে ও বুঝতে হবে। সতর্কতা অবলম্বন করা একটা যোগ্যতা। সবাই সেটা পারে না। শেখ হাসিনা পারেন। সে কারণেই তিনি সফল।

দলীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, অনেককে বলতে শুনি বিদ্যুতের কথা আর বলেন না। বিব্রত হতে হয়। কেন বিব্রত হতে হবে? আমাদের প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী আমরা বিদ্যুৎ উৎপাদন বাড়িয়েছি। শতভাগ বিদ্যুতায়ন সম্পন্ন করেছি। এখন নিজেদের সতর্কতার জন্য ২৪ ঘণ্টার মধ্যে দুই ঘণ্টা বিদ্যুৎ না থাকলে কেন বিব্রত হতে হবে?