।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

ইউক্রেন জৈব ও রাসায়নিক অস্ত্রের উন্নয়ন ঘটাচ্ছে বলে রাশিয়া যে অভিযোগ তুলেছে তার তীব্র সমালোচনা করেছেন প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। যুক্তরাষ্ট্রের সহায়তায় কিয়েভ এসব অস্ত্রের উন্নয়ন ঘটাচ্ছে বলে সম্প্রতি অভিযোগ তোলে মস্কো।

এক ভিডিয়ো বার্তায় ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি বলেন, ‘অভিযোগ উঠেছে, আমরা রাসায়নিক হামলার প্রস্তুতি নিচ্ছি।’ তিনি বলেন, ‘এটি আমাকে সত্যিই ভয় ধরিয়ে দিয়েছে, কারণ আমরা বারবার আশ্বস্ত হয়েছি: যদি রাশিয়ার পরিকল্পনার বুঝতে হয় তাহলে দেখতে হবে রাশিয়া অন্যদের কিসে অভিযুক্ত করছে।’

জেলেনস্কি বলেন, ‘রাসায়নিক হামলার প্রস্তুতির এই অভিযোগ কেন? আপনারা কি ইউক্রেনকে ‘রাসায়নিকমুক্ত’ করার সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছেন? অ্যামোনিয়া ব্যবহার করে? ফসফরাস ব্যবহার করে? আমাদের জন্য আর কী তৈরি করেছেন?’

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জোর দিয়ে বলেন, ‘কোন রাসায়নিক কিংবা অন্য কোনও ব্যাপক বিধ্বংসী অস্ত্রের উন্নয়ন আমার মাটিতে হচ্ছে না।’

ভিডিয়ো বার্তায় জেলেনস্কি জানান বৃহস্পতিবার ইউক্রেনীয় সরকারের সহায়তায় ৪০ হাজার মানুষকে সরিয়ে নেয়া হয়েছে। গত দুই দিনে এই সংখ্যা এক লাখের বেশি বলে জানান তিনি।

জেলেনস্কি আরও দাবি করেন হামলার শিকার হওয়ার শহরগুলোতে খাদ্য, ওষুধসহ জরুরি ত্রাণ সরবরাহের ব্যবস্থা করতে সক্ষম হয়েছে ইউক্রেনীয় বাহিনী। তবে তিনি জানান, মারিয়োপোল এবং কাছের ভলনোকাভা উভয় শহরই অবরুদ্ধ রয়েছে। সূত্র: বিবিসি