।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

পাবনার ঈশ্বরদী উপজেলার নির্মাণাধীন রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে কর্মরত দুই রুশ নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে। 

শনিবার (৫ ফেব্রুয়ারি) সকালে ঈশ্বরদী থানা পুলিশ সুরতহাল শেষে ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ দুটি পাবনা জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

ময়নাতদন্ত শেষে দূতাবাসের মাধ্যমে তাদের মরদেহ নিজ দেশে পাঠানো হবে। 

শনিবার (৫ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে রূপপুর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ আতিকুল ইসলাম আতিক এতথ্য নিশ্চিত করেছেন। 

এর আগে শুক্রবার (৪ ফেব্রুয়ারি) দিবাগত রাতে রূপপুর রাশিয়ানদের থাকার জন্য নির্মিত ঈশ্বরদী সাঁহাপুর ইউনিয়নের নতুনহাট ‘গ্রীনসিটি’ আবাসিক ভবনের বহুতল ভবনে ওই দুইজনের মৃত্যু হয়।

থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার (৪ ফেব্রুয়ারি) রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের এসএমইউ-১ নামে সাব ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের ইনস্টলার রাত ২টার দিকে গ্রীনসিটি এলাকার ১২ নাম্বার আবাসিক ভবনের ১৩ তলার ১৩১ নম্বর ফ্ল্যাটে অতিরিক্ত মদ পান করে সিঁড়ি দিয়ে ওঠার সময় তলমাসেফ ভাইয়াসেলভ (৫৯) নামে এক রুশ নাগরিক পড়ে যান। তাকে উদ্ধার করে ঈশ্বরদী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে দায়িত্বরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। একই রাত ৩টার দিকে রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের স্ট্রেট রোসেম নামে রুশ সাব ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার রুশ নাগরিক চুকিন পাভেল (৪৮) অতিরিক্ত মদ পান করার কারণে ১৪ তলায় অসুস্থ হয়ে পড়েন। তাকে উদ্ধার করে গ্রিনসিটি থেকে ঈশ্বরদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনা হলে চিকিৎসক তাকেও মৃত ঘোষণা করেন।

ঈশ্বরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আসাদুজ্জামান আসাদ জানান, মৃত দুই রুশ নাগরিকদের মধ্যে একজনের অতিরিক্ত মদ পানে এবং অপরজনের হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে। পুলিশ হাসপাতাল থেকে মরদেহ দুটির সুরতাহাল শেষে ময়নাতদন্তের জন্য পাবনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছে। ময়নাতদন্ত শেষে মরদেহ দুটি তাদের দূতাবাসের মাধ্যমে নিজ দেশে পাঠানো হবে।