grand river view

।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক প্রথম বর্ষের ‘বি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার ফল (সংশোধিত) পুনরায় প্রকাশ করা হয়েছে। ফল সংশোধনের পর অনেকের মেধাক্রম পরিবর্তন হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

রাতে প্রকাশিত ফলাফলে ৬২ দশমিক ৩০ নম্বর পাওয়া শিক্ষার্থী মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) দুপুরে ফলাফল সংশোধনের পর পেয়েছে ৫৩ দশমিক ৩০ নম্বর। এতে মেধাক্রমের বিশাল পরিবর্তন হয়েছে।

এর আগে এই ইউনিটের ফলাফরে অসঙ্গতি থাকায় মঙ্গলবার সকাল ১০টার দিকে ওয়েবসাইট থেকে ফল সরিয়ে নেয় কর্তৃপক্ষ। সকালের ফলাফলে পরীক্ষা দেয়ার পরও ১ হাজার ৬০০ জন শিক্ষার্থীকে অনুপস্থিত দেখানো হয়। পরে দুপুরে ফলাফল প্রকাশের পর আবারও বিভিন্ন অসঙ্গতি দেখা যায়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট থেকে দেখা যায়, অবাণিজ্য থেকে পরীক্ষায় অংশ নেয়া গ্রুপ-২ এর একজন ভর্তিচ্ছু আবু তাহের হোসেনের প্রথমে ফলাফল আসে ৬২ দশমিক ৩০।

এতে তার মেধাক্রম হয় ৮২০ তম। পরবর্তীতে আজ দুপুরে সংশোধিত ফলাফল প্রকাশ হলে তার প্রাপ্ত নম্বর দেখায় ৫৩ দশমিক ৩০ ও মেধাক্রম হয় এক হাজার ৭৮৮ তম। আরও দেখা যায়, ইমু সাহা নামের একজন ছাত্রী প্রথমে ৮০ দশমিক ৩০ নম্বর পেয়ে ২৩ তম হোন। পরে সংশোধিত ফলাফলে তার প্রাপ্ত নম্বর দেখায় ৪৯ দশমিক ৬০ এবং মেধাক্রম আসে দুই হাজার ২০৫।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের আইসিটি সেন্টারের পরিচালক অধ্যাপক বাবুল ইসলাম বলেন, আগের ফলাফলের ইনডেক্সে সমস্যা হয়েছিল।

তাই তখন তাদের ফলাফল ভুলভাবে দেখানো হয়েছে। এখন সঠিকভাবে ইনডেক্স করার পর তাদের প্রাপ্ত নম্বর দেখানো হচ্ছে। ফলে মেধাক্রম পরিবর্তন হয়েছে। এটাই সঠিক।