।। শিল্প ও সাহিত্য ডেস্ক ।।

অতিমারি করোনাকালে গল্প ও কবিতার বই পড়ে সময় কাটাচ্ছেন কবি ও ভাষাচিত্রী আনিফ রুবেদ। উত্তরকালের সঙ্গে আলাপকালে জানিয়েছেন নিজের নতুন পাণ্ডুলিপি সম্পাদনার কথা।

‘করোনা মহামারি কতটুকু প্রভাব ফেলছে আপনার লেখায়?’ জানতে চাইলে আনিফ রুবেদ বলেন, প্রতিটা ক্ষেত্রেই করোনা তার সর্বশক্তি দিয়ে আঁচড় কাটছে। মানুষের আহাজারি মনকে ক্ষতাক্ত করে দিচ্ছে। করোনার নির্দয় প্রভাব বুঝতে পারছি হাঁটতে গিয়ে, খাটতে গিয়ে, পড়তে গিয়ে, লেখা সংক্রান্ত কাজ করতে গিয়ে। অবশ্যই এ অনুভূতি নেতিবাচক। চাপ সৃষ্টিকারী এবং দানবীয়।

নিজের সাম্প্রতিক পড়াশোনা সম্পর্কে তিনি বলেন, প্রচুর বই পড়ার চেষ্টা করছি। তরুণদের নতুন নতুন গল্প কবিতার বই। পড়ে কখনো কখনো রিভিউ লেখার চেষ্টাও করি। ফেসবুকে মাঝে মাঝে দিই রিভিউ। আর পড়ার চেষ্টা করছি দর্শন এবং ইতিহাসের বই। ইতিহাসের বই খুঁড়ে দেখছি রাজাদের খঞ্জর, মানুষের ভাঙা পঞ্জর।

‘বর্তমানে কি লিখছেন?’ এমন জিজ্ঞাসায় তিনি বলেন, এখন নতুন কিছু লেখা হচ্ছে না। তবে পুরাতন কিছু লেখা নিয়ে পাণ্ডুলিপি গোছানোর চেষ্টা করছি।

প্রসঙ্গত, আনিফ রুবেদের জন্ম ১৯৮০ সালের ২৫ ডিসেম্বর, চাঁপাইনবাবগঞ্জে। তাঁর উল্লেখযোগ্য গ্রন্থ: জীবগণিত (২০২০), মন ও শরীরের গন্ধ (২০১৪), দৃশ্যবিদ্ধ নরনারীগান (২০১৭), এসো মহাকালের মাদুরে শুয়ে পড়ি (২০১৫)। স্বীকৃতি হিসেবে পেয়েছেন জেমকন সাহিত্য পুরস্কার।