।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে তৃতীয়বারের মতো গত বুধবার শপথ নিয়েছেন মমতা ব্যানার্জি। বিধানসভা নির্বাচনে জয়ের পর মমতার নয়া মন্ত্রিসভার শপথগ্রহণ ১০ মে সোমবার। বেলা পৌনে ১১টায় শপথ নেবেন মন্ত্রীরা।

এদিকে, আজ রোববার (৯মে) ৪৩ জন মন্ত্রীর তালিকা রাজভবনে জমা দিয়েছেন মমতা। এর মধ্যে পূর্ণমন্ত্রী ২৪ জন। বাকি ১৯ জন প্রতিমন্ত্রীর মধ্যে ১০ জন পাচ্ছেন স্বাধীন দফতর।

মন্ত্রিসভায় ১৬ জন নয়া মুখ দেখা যাবে। আবার নির্বাচনে প্রার্থী না হলেও মন্ত্রী হিসেবে শপথ নিতে চলেছেন প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র।

মন্ত্রিসভায় নয়া মুখ হচ্ছেন বঙ্কিম হাজরা, রথীন ঘোষ, পুলক রায়, বিপ্লব মিত্র, হুমায়ুন কবীর, অখিল গিরি, রত্না দে নাগ, বুলুচিকি বরাইক, দিলীপ মণ্ডল, আক্রুজ্জমান, শিউলি সাহা, শ্রীকান্ত মাহাত, বীরবাহা হাঁসদা, জ্যোৎস্না মান্ডি, পরেশ অধিকারী ও মনোজ তিওয়ারি।

বিধানসভা নির্বাচনে চলচ্চিত্র জগতের অনেকেই তৃণমূলের টিকিটে বিধায়ক হয়েছেন। কিন্তু রোববার মন্ত্রীদের যে তালিকা রাজভবনে মমতা জমা দিয়েছেন তাতে রুপালি জগতের কারও নাম নেই। তবে মন্ত্রিত্ব পাচ্ছেন প্রাক্তন ক্রিকেটার তথা হাওড়ার শিবপুরের বিধায়ক মনোজ তিওয়ারি। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম আনন্দবাজারের এক প্রতিবেদন সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

রাজনৈতিক দিক থেকে গুরুত্বপূর্ণ একটি নাম রয়েছে মন্ত্রীদের তালিকায়। জায়গা পেয়েছেন রামনগরের বিধায়ক অখিল গিরি। বরাবর পূর্ব মেদিনীপুরের অধিকারী পরিবারের বিরুদ্ধ গোষ্ঠী হিসেবে পরিচিত ৪ বারের বিধায়ক অখিল এই প্রথমবার মন্ত্রিত্ব পাচ্ছেন। মন্ত্রী হচ্ছেন ওই গোষ্ঠীর শিউলি সাহাও।

অন্যদিকে, কামারহাটি বিধানসভা আসনে জয় পেলেও তালিকায় নাম নেই রাজ্যের প্রাক্তন পরিবহন মন্ত্রী মদন মিত্রের। বাদ পড়েছেন গত মন্ত্রিসভার দুই সদস্য তাপস রায় ও নির্মল মাঝি।