।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

মধ্য আফ্রিকার দেশ ইকুয়েটোরিয়াল গিনির একটি সামরিক ঘাঁটিতে বিস্ফোরণে অন্তত ২০ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন চার শতাধিক মানুষ। দেশটির প্রেসিডেন্ট জানান, ডিনামাইট ব্যবহারে গাফিলতির কারণে এ বিস্ফোরণ ঘটে।

আকস্মিক বিস্ফোরণে মুহূর্তেই বয়ে যায় রক্তের বন্যা। লাশে পরিণত হয় বহু মানুষ। স্থানীয় সময় রোববার (৭ মার্চ) বিকেলে ইকুয়েটোরিয়াল গিনির বাটা শহরের একটি সামরিক ঘাটিতে হঠাৎ বিস্ফোরণে লণ্ডভণ্ড হয়ে যায় পুরো এলাকা। আহত হন চার শতাধিক মানুষ যাদের মধ্যে অনেকের অবস্থাই আশঙ্কাজনক। এ অবস্থায় আহতদের সেবায় দেশটির স্বেচ্ছাসেবী স্বাস্থ্যকর্মীদের এগিয়ে আসার এবং রক্তদানের আহ্বান জানিয়েছে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

ঘটনার প্রায় দুই ঘণ্টা পর সরকারি টেলিভিশনে এক বিবৃতিতে দেশটির প্রেসিডেন্ট জানান, সেনাঘাঁটিতে ডিনামাইট ব্যবহারে গাফিলতির জন্যই ভয়াবহ ওই বিস্ফোরণ ঘটেছে। তবে এ বিষয়ে বিস্তারিত আর কিছু জানা যায়নি।

বিস্ফোরণের পর দেশটির রাজধানী মালাবোতে অবস্থান করা স্পেনের নাগরিকদের ঘরে থাকার অনুরোধ জানিয়ে কয়েক দফা জরুরি সতর্কতা জারি করে স্পেনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এদিকে এ দুর্ঘটনায় হতাহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন মালাবোতে অবস্থিত ইকুয়েটোরিয়ান গিনির ফরাসি দূতাবাস।