।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

প্রখ্যাত লেখক, গবেষক, কলামিস্ট ও সাংবাদিক সৈয়দ আবুল মকসুদকে শেষ শ্রদ্ধা জানিয়েছে বিভিন্ন সংগঠন এবং সর্বস্তরের মানুষ। বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) বিকালে  সর্বস্তরের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য তাঁর মরদেহ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে রাখা হয়। এ সময় ফুলেল শ্রদ্ধায় সিক্ত করা হয় সৈয়দ আবুল মকসুদকে।

এর আগে জাতীয় প্রেসক্লাবে সৈয়দ আবুল মকসুদের দ্বিতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। এরপর তাঁর মরদেহ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নিয়ে আসা হয়। সেখানে শুরুতেই আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধা জানান কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক। এসময় তার সঙ্গে ছিলেন আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, উপ দফতর সম্পাদক সায়েম খান, আওয়ামী লীগ নেতা অসীম কুমার উকিল।

পরে একে একে শ্রদ্ধা জানায়— দৈনিক প্রথম আলো, দৈনিক সমকাল, গণসংহতি আন্দোলন, বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টি, বাম গণতান্ত্রিক জোট, বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি, বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ, ভাসানী অনুসারী পরিষদ, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি, আদিবাসী ফোরামসহ বিভিন্ন সংগঠন।

শ্রদ্ধা জানানো শেষে কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেন, ‘আমরা প্রখ্যাত লেখক, কলামিস্ট সৈয়দ আবুল মকসুদকে বিনম্র শ্রদ্ধা জানাচ্ছি। তার আত্মার মাগফেরাত কামনা করছি। তিনি বাংলাদেশে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও স্বাধীনতার চেতনা বিকাশে অনেক অবদান রেখেছেন।’

প্রসঙ্গত,মঙ্গলবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় স্কয়ার হাসপাতালে মারা যান সৈয়দ আবুল মকসুদ।  ওইদিন রাত ১০টায় ধানমন্ডির মসজিদে তাকওয়ায় তাঁর প্রথম নামাজে জানাজা  অনুষ্ঠিত হয়। পরে তাঁর মরদেহ রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে রাখা হয়।

সৈয়দ আবুল মকসুদের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এছাড়া সমাজের বিশিষ্টজনেরাও তার মৃত্যুতে শোক জানান।