।। নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী ।।  

রাজশাহী সদর আসনের সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশ রেশম উন্নয়ন বোর্ডের সিনিয়র সহ-সভাপতি ফজলে হোসেন বাদশা বলেছেন, রাজশাহী রেশমের নগর। তাই এই শিল্পকে বাঁচাতে হবে। আমি রেশম কারখানার দায়িত্ব নিয়েছি। ইতিমধ্যেই এখানে ১৯টি লুম চালু হয়েছে। আমি ৬১টি লুমই চালু করব। তাহলেই রাজশাহীতে নতুন করে আরও ১০ হাজার মানুষের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা হবে।

শনিবার (২১ নভেম্বর) দুপুরে রাজশাহী নগরের মালদা কলোনির আটকোশী উচ্চবিদ্যালয়ের এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। এর আগে তিনি বিদ্যালয়ের ছয়তলা একাডেমিক ভবনের নির্মাণকাজ উদ্বোধন করেন।

বাদশা বলেন, রাজশাহীকে উন্নতির দিকে এগিয়ে নিতে হলে কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে হবে। এক্ষেত্রে রেশম কারখানা কর্মসংস্থানের অন্যতম একটি জায়গা হতে পারে। আমি এখানে ৬১টি লুমই চালু করার ব্যবস্থা করব। তাহলে রাজশাহীসহ আশেপাশের জেলাগুলোর মানুষেরও কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা হবে। কর্মসংস্থান হলেই প্রকৃত উন্নয়ন হবে।

রাজশাহীর শিক্ষাব্যবস্থার সার্বিক পরিস্থিতি তুলে ধরে তিনি বলেন, শিক্ষা সার্বজনীন ব্যাপার। শিক্ষা পাবার মৌলিক অধিকার সবার আছে। শিক্ষানগর হিসেবে রাজশাহীর যে পরিচিতি সেটা প্রতিষ্ঠা করার চেষ্টা আমি সবসময় করেছি।

শিক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির এই সদস্য বলেন, একটা সময় রাজশাহীর শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের অনেক খারাপ অবস্থা ছিল। কিন্তু এখন আর কোন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের এমন খারাপ অবস্থা নেই। রাজশাহীর সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানেই সুউচ্চ ভবন গড়ে উঠেছে। এখন শিক্ষার্থীরা ভালো পরিবেশে পড়াশোনা করতে পারছে।

আলোচনা সভায় অন্যদের মধ্যে আরও উপস্থিত ছিলেন শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের রাজশাহীর নির্বাহী প্রকৌশলী রেজাউল ইসলাম, ১৬ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর বেলাল আহমেদ, সংরক্ষিত নারী ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মাজেদা বেগম, বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুস সালাম, প্রধান শিক্ষিক শিউলী খাতুন প্রমুখ। সভায় সভাপতিত্ব করেন স্কুলটির ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আব্দুল মান্নান।

Berger Weather Coat