।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

দেশের সব হাসপাতালের আইসিইউ’র সংখ্যা এবং করোনা রোগীদের জন্য হাসপাতালের কয়টি আইসিইউ বেড রয়েছে তা জানতে চেয়েছেন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে সারাদেশের আইসিইউর সেন্ট্রাল মনিটরিং ব্যবস্থা রয়েছে কিনা তাও জানাতে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

বুধবারের (১০ জুন) মধ্যে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবীদের এসব তথ্য জানাতে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। এ সংক্রান্ত রিট আবেদনের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে সোমবার (৮ জুন) বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিমের নেতৃত্বাধীন ভার্চুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চ এসব নির্দেশনা দেন।

ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী ইয়াদিয়া জামান। আর রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল মুরাদ রেজা ও ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অমিত তালুকদার।

এর আগে রোববার (৭ জুন) করোনাকালীন দেশের সব বেসরকারি হাসপাতালের আইসিইউগুলো সরকারের তত্ত্বাবধানে অধিগ্রহণের প্রয়োজনীয় নির্দেশনা চেয়ে হাইকোর্টে রিট করা হয়। একইসঙ্গে রিটে আইসিইউর বেডগুলো পর্যালোচনায় রাখতে অনলাইনের মাধ্যমে ‘সেন্ট্রাল বেড ব্যুরো’ চালুরও নির্দশনা চাওয়া হয়। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ডেপুটি রেজিস্ট্রার ডা. আব্দুল্লাহ আল মামুনের পক্ষে অ্যাডভোকেট ইয়াদিয়া জামান এই রিট করেন।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় এবং পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের সচিব, ঢাকা ও চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসকসহ সংশ্লিষ্ট ছয় জনকে এ রিটে বিবাদী করা হয়েছে।

এছাড়া বেসরকারি হাসাপাতালের আইসিইউগুলো সরকার অধিগ্রহণ করলে তা পর্যবেক্ষণের জন্য ‘সেন্ট্রাল বেড ব্যুরো’ চালু করতেও রিটে নির্দেশনা চাওয়া হয়।

সেন্ট্রাল বেড ব্যুরো প্রসঙ্গে আইনজীবী ইয়াদিয়া জামান বলেন, ‘দেশের কোন হাসপাতালে কয়টি আইসিইউ বেড খালি আছে, কোথায় খালি নেই, মূলত সেন্ট্রাল বেড ব্যুরো সেসব বিষয় পর্যবেক্ষণে রাখবে। তাই এ ব্যবস্থা চালু হলে রোগীদের অযথা হাসপাতাল ঘুরে হয়রান হতে হবে না। তারা আগে থেকে জেনেই নির্দিষ্ট হাসপাতালে গিয়ে ভর্তি হওয়ার সুযোগ পাবেন।’

Berger Weather Coat