।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

যুক্তরাষ্ট্রের অর্ধশত রাজ্যের মধ্যে ৪৮টিই যখন লকডাউন শিথিল করার প্রস্তুতি নিচ্ছে, করোনাভাইরাস মহামারীতে সবচেয়ে পর্যুদস্ত এই দেশটিতে মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়ে গেছে ৮০ হাজার।

জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয় কোভিড-১৯ পরিস্থিতির নিয়মিত যে টালি প্রকাশ করছে, তাতে মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত যুক্তরাষ্ট্রে আক্রান্তের মোট সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৩ লাখ ৪৭ হাজার ৩৮৮ জন। আর আক্রান্তদের মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৮০ হাজার ৬৮২ জনের।

বিবিসি লিখেছে, যুক্তরাষ্ট্রে কোভিড-১৯ মোট মৃত্যুর সংখ্যা তালিকার পরের তিনটি দেশ যুক্তরাজ্য, ইতালি ও স্পেনের মোট মৃত্যুর প্রায় সমান।

জনস হপকিন্সের টালি অনুযায়ী, যুক্তরাজ্যে এ পর্যন্ত ৩২ হাজার ১৪১ জন, ইতালিতে ৩০ হাজার ৭৩৯ জন এবং স্পেনে ২৬ হাজার ৭৪৪ জনের প্রাণ গেছে করোনাভাইরাসের সংক্রমণে।

যুক্তরাষ্ট্রে আক্রান্তের মোট সংখ্যা চীনের চেয়ে ১৬ গুণ বেশি, যেখানে গত ডিসেম্বরের শেষে এই ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের সূচনা হয়েছিল।

সিএনএন জানিয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রে সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় ১১৫৪ জনের মৃত্যু হয়েছে, সংক্রমণ ধরা পড়েছে নতুন আরও ১৭ হাজার ৫৯৭ জনের মধ্যে।

দেশটির ৫০টি রাজ্যের মধ্যে সবচেয়ে নাজুক দশায় পড়া নিউ ইয়র্কে এ পর্যন্ত ৩ লাখ ৩৭ হাজার ৫৫ জন আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছেন, মৃত্যু হয়েছে অন্তত ২৬ হাজার ৯৮৮ জনের।

নিউ ইয়র্কে প্রায় সব অফিস-আদালত, দোকানপাট এখনও বন্ধ। তবে শুক্রবার থেকে সেখানে কম ঝুঁকির কিছু ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে।

অন্য রাজ্যগুলোতেও বিধিনিষেধ কতটা কীভাবে উঠবে তা নির্ভর করবে স্থানীয় মহামারী পরিস্থিতির ওপর। আইডাহোতে প্রায় ৯০ শতাংশ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে খোলার অনুমতি দেয়া হচ্ছে। উপাসনালয়ের জন্যও নতুন নীতিমালা জারি করা হচ্ছে। 

জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য অনুযায়ী, মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত বিশ্বে শনাক্ত হওয়া কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪১ লাখ ৭৭ হাজার ৫৮৪ জনে। আর মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২ লাখ ৮৬ হাজার ৩৩০ জন হয়েছে।