।। শোবিজ প্রতিবেদন ।।

কুষ্টিয়ার কুমারখালি উপজেলার ছেঁউড়িয়ার লালন আখড়াবাড়িতে তিন দিনব্যাপী শুরু হয়েছে বাউল সম্রাট ফকির লালন শাহের স্মরণোৎসব ও গ্রামীণ মেলা।

লালন সাঁইজির অমর বাণী ‘মানুষ ভজলে শোনার মানুষ হবি’ প্রতিপাদ্যে লালন অ্যাকাডেমির আয়োজনে, সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয় ও কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় রোববার (৮ মার্চ) থেকে শুরু হচ্ছে তিন দিনের এই উৎসব। চলবে ১০ মার্চ পর্যন্ত।

রোববার সন্ধ্যায় আনুষ্ঠানিকভাবে তিন দিনব্যাপী স্মরণোৎসব ও গ্রামীণ মেলা উদ্বোধন করবেন সংস্কৃতিবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে থাকবেন কুষ্টিয়া-১ (দৌলতপুর) আসনের সংসদ সদস্য আ. কা. ম. সরওয়ার জাহান বাদশা। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করবেন কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক (ডিসি) মো. আসলাম হোসেন।

স্মরণোৎসবের দ্বিতীয় দিন প্রধান অতিথি থাকবেন খুলনা বিভাগীয় কমিশনার ড. মু. আনোয়ার হোসেন হাওলাদার। বিশেষ অতিথি থাকবেন কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার (এসপি) এস এম তানভীর আরাফাত।

স্মরণোৎসবের তৃতীয় দিন প্রধান অতিথি হিসেবে থাকবেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন। এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে থাকবেন কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার (এসপি) এস এম তানভীর আরাফাত।

লালন অ্যাকাডেমির সভাপতি ও কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসক (ডিসি) মো. আসলাম হোসেন বলেন, ‘লালন স্মরণোৎসবে বিভিন্ন দেশ থেকে লালনের ভক্ত, অনুসারী ও দর্শনার্থীদের বিপুল সমাগম হয়। স্মরণোৎসব ও গ্রামীণ মেলাকে কেন্দ্র করে মাজার প্রাঙ্গণ ও এর আশেপাশের এলাকায় নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে।’