Loading...
পড়তে পারবেন < 1 মিনিটে

।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

শারীরিক সীমাবদ্ধতায় বিষণ্নতায় ভুগে নিজেকে ঘরে বন্দি করে রেখেছেন, ছেলে এদিনিয়োর এমন দাবি উড়িয়ে দিলেন পেলে। সর্বকালের অন্যতম সেরা ফুটবলার হিসেবে বিবেচিত ব্রাজিলের সাবেক অধিনায়ক ভক্তদের আশ্বস্ত করলেন, তিনি ভালো আছেন এবং ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন।

গত সোমবার ব্রাজিলিয়ান পত্রিকা গ্লোবো পেলের ছেলের একটি সাক্ষাৎকার প্রকাশ করে। এদিনিয়ো বলেছিলেন, তিনবারের বিশ্বকাপজয়ী অসুস্থতার কারণে ঘর থেকে বের হন না। জনসম্মুখে এসে করতে হবে এমন কাজে আগ্রহ দেখান না। কারণ নিতম্বের সমস্যায় ঠিকমতো চলাফেরা করতে পারেন না। প্রায় সময় হুইলচেয়ারে থাকতে হয় তাকে।

আগামী অক্টোবরে বয়স হবে ৮০ বছর, শারীরিক সীমাবদ্ধতাকে স্বাভাবিকভাবেই নিয়েছেন পেলে, ‘আমি ভালো আছি। আমার শারীরিক সীমাবদ্ধতাকে আমি মেনে নিয়েই চলছি। আমাকে তো এগিয়ে যেতেই হবে। আমার ভালো দিন, খারাপ দিন আছে। আমার বয়সী একজন মানুষের জন্য এটা স্বাভাবিক। আমি ভীত নই। যা করছি, সেটা আমি দৃঢ় আর আত্মবিশ্বাসী হয়েই করছি।’

একমাত্র খেলোয়াড় হিসেবে তিনটি বিশ্বকাপ জেতা পেলে গত কয়েক বছর ধরে নিতম্বের সমস্যায় ভুগছেন। সম্প্রতি জনসম্মুখে বেশির ভাগ সময় তাকে দেখা গেছে হুইলচেয়ারে। তার সাবেক ক্লাব সান্তোস ও নিউইয়র্ক কসমসের সতীর্থরা জানান, জানুয়ারিতে অনেক ব্যস্ত সময় কাটিয়েছেন পেলে। ফটো শুটের পাশাপাশি স্পন্সরশিপের কাজ করেছেন। তার ফুটবল জীবন নিয়ে ডকুমেন্টারি বানাতে একজন ব্রিটিশ পরিচালককে সহযোগিতা করছেন। পেলে বলেছেন, ‘আমার ব্যস্ত সূচিতে যাতে কোনও ছন্দপতন না ঘটে, সেই চেষ্টা করে যাচ্ছি।’ এ বছর হবে তার তৃতীয় বিশ্বকাপ জেতার ৫০ বছর পূর্তি। ১৯৭০ সালে মেক্সিকোতে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল সর্বকালের অন্যতম সেরা ব্রাজিল।

সবশেষ আপডেট

উত্তরকাল

বিশ্বকে জানুন বাংলায়

All original content on these pages is fingerprinted and certified by Digiprove
%d bloggers like this: