।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

বিশ্বকাপ ক্রিকেটে অন্যতম ফেভারিট দল ইংল্যান্ড। বলা হচ্ছিলো, শিরোপার অন্যতম দাবিদার। শুরুটাও করেছিলো দুর্দান্ত। কিন্তু নিজেদের সপ্তম ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার কাছে ৬৪ রানে হেরে বিশ্বকাপে তৃতীয় পরাজয়ের স্বাদ পেতে হয়েছে ইংলিশদের।

এর আগে পাকিস্তান ও শ্রীলঙ্কার কাছে অপ্রত্যাশিত পরাজয়ের ফলেই ইংল্যান্ডের সেমিফাইনাল খেলা নিয়ে শঙ্কায় পড়েছে। সেই সঙ্গে পঞ্চম স্থানে থাকা বাংলাদেশের জন্য সেমিফাইনালের সম্ভবনা উজ্জ্বল হলো।

বাংলাদেশের বাকি রয়েছে আর দু’টি ম্যাচ। ২ ও ৫ জুলাই ম্যাচগুলো ভারত ও পাকিস্তানের বিপক্ষে। এই দুই ম্যাচের একটি জিতলেও সেমিতে যাওয়ার যোগ্যতা অর্জন করতে পারে পয়েন্ট টেবিলের পঞ্চম স্থানে থাকা মাশরাফিবাহিনী। তবে পয়েন্ট টেবিলের চার নম্বরে অবস্থান করা ইংলিশদের হারতে হবে বাকি শেষ দু’টি ম্যাচই। ষষ্ঠ ও সপ্তম স্থানে থাকা শ্রীলঙ্কা ও পাকিস্তানকে শেষ তিন ম্যাচের অন্তত দু’টি ম্যাচে হারতে হবে।

বাংলাদেশের শেষ দুই প্রতিপক্ষ ভারত ও পাকিস্তান। ইংল্যান্ডের শেষ দুই প্রতিপক্ষ ভারত ও নিউজিল্যান্ড। অন্যদিকে পাকিস্তানের শেষ তিন প্রতিপক্ষ নিউজিল্যান্ড, আফগানিস্তান ও বাংলাদেশ। অপরদিকে শ্রীলঙ্কার শেষ তিন প্রতিপক্ষ দক্ষিণ আফ্রিকা, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও ভারত।

 শক্তির দিক বিবেচনা করলে বাংলাদেশ অন্যতম শক্তিশালী দল। তাই বাকি দু’টি ম্যাচের একটি ম্যাচে জয় আশা করতেই পারে বাংলাদেশ। অন্যদিকে ইংল্যান্ডের প্রতিপক্ষ ভারত ও নিউজিল্যান্ড। তাই পরপর দুই ম্যাচ হেরে মানসিকভাবে চাপে থাকা ইংল্যান্ডের দু’টি ম্যাচ হারা অসম্ভব কিছু নয়। আর প্রতিপক্ষের শক্তিমত্তার বিচারে পাকিস্তান ও শ্রীলঙ্কার দু’টি ম্যাচ হারাটাও অস্বাভাবিক নয়। তাই বাকি দু’টি ম্যাচের একটি ম্যাচ জিতেও সেমিফাইনালে খেলার আশা বাংলাদেশের জন্য অসম্ভব নয়।

Digiprove sealCopyright protected by Digiprove © 2019
Acknowledgements: বাংলানিউজ
All Rights Reserved