।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম দুই ম্যাচে উজ্জ্বল পারফরম্যান্স প্রদর্শন করেছে বাংলাদেশ। দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়ে টুর্নামেন্টে যাত্রা করে টাইগাররা। পরের ম্যাচে লড়াই করে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে পরাজয় বরণ করে তারা।

তবে নিজেদের তৃতীয় ম্যাচে বড় ধাক্কা খেয়েছে বাংলাদেশ। ইংল্যান্ডের রান পাহাড়ের জবাবে দাঁড়াতেই পারেননি লাল-সবুজ জার্সিধারীরা। ব্যর্থ ছিলেন সব ব্যাটসম্যান। ব্যতিক্রম কেবল সাকিব আল হাসান। ইংলিশদের পাহাড়সম টার্গেটে একাই লড়েছেন তিনি। স্রোতের বিপরীতে হাঁকিয়েছেন অনবদ্য সেঞ্চুরি। দলের ব্যাটিং বিপর্যয়ে খেলেছেন ১১৯ বলে ১২১ রানের মহাকাব্যিক ইনিংস। তার অনন্যা সাধারণ ইনিংসটি সাজানো ছিল ১২ চার ও ১ ছয়ে।

বুক চিতিয়ে লড়ার পর সাজঘরে ফেরার সময় সোফিয়া গার্ডেনসের সব দর্শক উঠে দাঁড়িয়ে অভিনন্দন জানিয়েছেন সাকিবকে। চারদিকে ব্যাট ঘুরিয়ে তাদের অভিনন্দনের জবাব দিয়েছেন তিনি। এর আগে কয়েকটি রেকর্ড দখলে নেন সাকিব। বিশ্বকাপ ইতিহাসে প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে দ্বিতীয় ইনিংসে সেঞ্চুরির কীর্তি গড়েন তিনি। এ ছাড়া বাংলাদেশের হয়ে দ্রুততম সেঞ্চুরি (৯৫ বলে) করার কৃতিত্ব দেখান এ বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। দলের হয়ে সর্বোচ্চ রান ও উইকেট শিকারিও তিনি।

স্বভাবতই সাকিবের বীরত্বে গুণমুগ্ধ ক্রিকেটবিশ্ব। সোশ্যাল মিডিয়ায় চলছে তার বন্দনা। টুইটারে গুণকীর্তনে মেতেছেন ক্রিকেটবিশ্বের রথী-মহারথীরা।

ভারতের জনপ্রিয় ধারাভাষ্যকার হার্শা ভোগলে টুইটবার্তায় লিখেছেন, আমার অন্যতম প্রিয় ক্রিকেটার যেভাবে ব্যাটিং করলেন তা দেখে আমি আনন্দিত। তার ক্লাস আছে বটে। অস্ট্রেলিয়ার সাবেক ক্রিকেটার, কোচ ও ধারাভাষ্যকার টম মুডি লেখেন, ভালো খেলেছ বন্ধু, তোমার শতভাগ কোয়ালিটি আছে।

ভারতের সাবেক ওপেনার ও জনপ্রিয় ধারাভাষ্যকার আকাশ চোপড়া লেখেন- সাকিব খেলল, নিঃসন্দেহে বাংলাদেশের সর্বকালের সেরা খেলোয়াড়। এখন পর্যন্ত তিন ম্যাচ খেলে এক জয় ও দুই হারে পয়েন্ট টেবিলের অষ্টম স্থানে বাংলাদেশ। আগামী ১১ জুন শ্রীলংকার বিপক্ষে নিজেদের চতুর্থ ম্যাচ খেলতে নামবে টাইগাররা। এ ম্যাচ দিয়ে জয়ের ধারায় ফিরতে চাই তারা।

Digiprove sealCopyright protected by Digiprove © 2019
Acknowledgements: যুগান্তর
All Rights Reserved