Berger Viracare

।। শোবিজ প্রতিবেদন ।।

দীর্ঘদিন ক্যান্সারের সঙ্গে লড়াই করে অবশেষে পৃথিবী থেকে বিদায় নিলেন মঞ্চ, টিভি ও চলচ্চিত্র অভিনেত্রী এবং মুক্তিযোদ্ধা মায়া ঘোষ (৭০)। রোববার (১৯ মে) সকাল পৌনে ৯টার দিকে যশোরের কুইন্স হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেছেন।

মায়া ঘোষের বড় ছেলে দীপক ঘোষ মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, ২০০০ সাল থেকে মা ক্যান্সারে আক্রান্ত। তবে প্রথম দিকে চিকিৎসার পর দীর্ঘদিন তিনি সুস্থ ছিলেন। ২০১৮ সালের অক্টোবর থেকে ক্যান্সারের কারণে ওনার শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটতে থাকে। এরপর এ বছর জানুয়ারি ও মার্চে দু’দফায় ভারতে ওনার চিকিৎসা করানো হয়। কিন্তু তিনি দেশে ফিরতে উদগ্রীব থাকায় সেখান থেকে এনে যশোরে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।

১৯৪৯ সালের ৩১ ডিসেম্বর যশোরের মণিরামপুর উপজেলার প্রতাপকাটি গ্রামে মায়া ঘোষ জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবার নাম শঙ্কর প্রসাদ গাঙ্গুলি। একই উপজেলার মাছনা-খানপুর গ্রামের দিলীপ ঘোষের সঙ্গে তিনি বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। ১৯৮৪ সালে তারা ঢাকায় স্থায়ীভাবে বসবাস শুরু করেন।

১৯৮১ সালে ‘পাতাল বিজয়’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে বড় পর্দায় মায়া ঘোষের যাত্রা শুরু হয়। প্রায় দুই শতাধিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন করেছেন তিনি। অসংখ্য মঞ্চ নাটক ও টিভি নাটকের অভিনেত্রী তিনি। সর্বশেষ ২০১৬ সালে ধারাবাহিক নাটক ‘ডিবি’তে তাকে অভিনয় করতে দেখা যায়।

১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় কলকাতায় বাংলাদেশি শরণার্থী শিবিরে মুক্তিযোদ্ধাদের রান্না করে খাওয়ানোর কাজ করেছেন মায়া ঘোষ। বহু আহত মুক্তিযোদ্ধার সেবাও করেছেন তিনি।