Zee5 Contract Coming Soon

।। নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী ।।

বকেয়া বেতন-ভাতা পরিশোধ ও মজুরি কমিশন বাস্তবায়নসহ ৯ দফা দাবিতে কর্মবিরতী ও সড়ব অবরোধ অব্যাহত রেখেছে রাজশাহীসহ দেশের সকল রাষ্ট্রায়ত্ব পাটকলের শ্রমিকরা। ১৩ মে থেকে তারা নতুন করে এই আন্দোলন শুরু করে। টানা ৬ দিন আন্দোলনের পর শ্রমিকরা তাদের দাবির পক্ষে মৃদু আলো দেখতে শুরু করেছে। শনিবার (১৮ মে) সরকারের পক্ষ থেকে প্রতিটি পাটকল শ্রমিকের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট নম্বর চেয়ে পাঠানো হয়েছে।

আশা করা হচ্ছে ঈদের আগেই শ্রমিকদের অ্যাকাউন্টে প্রাপ্য অর্থ পৌছে দেয়া হবে। এমনটাই জানিয়েছেন রাজশাহী জুটমিল শ্রমিক লীগের সভাপতি জিল্লুর রহমান। তবে শুধু আশ্বাসে কর্ণপাত না করে দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত তাদের আন্দোলনের কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে বলেও জানান তিনি।

রাজশাহী পাটকল শ্রমিকদের এই নেতা বলেন, আমাদের এ আন্দোলন কারো বিরুদ্ধে নয়। রাজশাহী পাটকলে দুই হাজারের মতো শ্রমিক কর্মরত। এর বাইরে রয়েছে ১২০জন কর্মচারী ও ৫৬জন কর্মকর্তা। প্রায় ৫ মাস থেকে আমাদের সকলের বেতন-ভাতা বন্ধ রয়েছে। পেটে ভাত না থাকলে শ্রমিকরা কীভাবে কাজ করে?

জিল্লুর রহমান আরো জানান, শনিবার পাট মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে রাষ্ট্রায়ত্ব সকল পাটকল শ্রমিকসহ সংশ্লিষ্ট সকল কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট চেয়ে পাঠানো হয়েছে। এ জন্য রাজশাহী পাটকল অফিসের হিসাব শাখা দিন-রাত কাজ করছে। আমাদের সকল শ্রমিকদের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট রয়েছে। অফিসকে সেই নম্বরগুলো দেয়া হয়েছে। তবে আমাদের ন্যায্য দাবি পূরণ না হওয়া পর্যন্ত কেন্দ্র ঘোষিত আন্দোলন ও অবরোধ কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে। কর্মবিরতির পাশাপাশি বাধ্য হয়ে আমরা বিকাল ৪টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত সড়ক অবরোধ করে রাখছি। রাস্তায় নামাজ আদায় ও ইফতারি করছে আন্দোলনরত সকল শ্রমিক।