।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

ভারতের ওড়িশায় আঘাত হেনেছে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ‘ফণি’। এই মুহূর্তে সেখানে বাতাসের গতিবেগ ঘণ্টায় ১৮৫ কিলোমিটার। ভারতের আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছে, দুপুর পর্যন্ত এর প্রভাব থাকবে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির এক প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা যায়।

শুক্রবার (৩ মে) সন্ধ্যা নাগাদ বাংলাদেশে আঘাত হানতে পারে প্রলয়ঙ্কারী ঘূর্ণিঝড় ‘ফণি’। আবহাওয়াবিদরা বলছেন, গত ১০ বছরের মধ্যে শক্তিশালী ঝড় এই ‘ফণি’। বর্তমানে এর গতিবেগ ঘণ্টায় ১৬০ থেকে ১৮০ কিলোমিটার। ভারতের ওড়িশা উপকূল দিয়ে স্থলভাগে প্রবেশ করে দেশটির পূর্বাঞ্চল দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করবে ঘূর্ণিঝড়টি।

ওড়িশা থেকে ‘ফণি’ স্থলভাগের ওপর দিয়ে পশ্চিমবঙ্গের দিকে এগুবে। এনডিটিভি জানিয়েছে, ওড়িশা, অন্ধ্র প্রদেশ ও পশ্চিমবঙ্গে আঘাত হানবে এই ঝড়।

বলা হচ্ছে, ১৯৯৯ সালের ঘূর্ণিঝড়ের পর এটাই এখন পর্যন্ত সবচেয়ে শক্তিশালী। এই ঝড়ে প্রায় ১০ হাজার গ্রাম ও ৫০টি শহর ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। শুক্রবার রাত সাড়ে ৯টা থেকে শনিবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত কলকাতা বিমানবন্দরে সব ফ্লাইট বন্ধ রাখা হয়েছে। ইতোমধ্যে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে প্রায় ১১ লাখ মানুষকে।

Digiprove sealCopyright protected by Digiprove © 2019
Acknowledgements: বাংলা ট্রিবিউন
All Rights Reserved
Berger Viracare