।। নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় ।।

চার বোতল ফেন্সিডিলসহ রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) চতুর্থ শ্রেণীর দুই কর্মচারীকে আটক করা হয়েছে। সোমবার বিকেলে শহীদ শামসুজ্জোহা হলের দক্ষিণ-পূর্ব কোণে বধ্যভূমি যাওয়ার রাস্তার পাশ থেকে তাদের আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেন শিক্ষার্থীরা।

আটককৃতরা হলেন- বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদুল্লাহ কলাভবনের প্রহরী শফিকুল ইসলাম ও স্টুয়ার্ড শাখার সাবেক কর্মচারী বাদল।

প্রত্যক্ষদর্শী শহীদ শামসুজ্জোহা হলের আবাসিক শিক্ষার্থী রাশেদ রাজন বলেন, দুপুরে জোহা হলের দক্ষিণ-পূর্ব কোণে বধ্যভূমি যাওয়ার রাস্তার পাশে কয়েকজন যুবক জঙ্গলে কী যেন রাখছিল। তাদের আচরণ সন্দেহজনক হলে হলের আবাসিক শিক্ষার্থীরা ওই যুবকদের অনুসরণ করে। এক পর্যায়ে মাদক কেনাবেচার বিষয়টি নিশ্চিত হলে তাদের আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়। দুইজনকে আটক করা গেলেও একজন পালিয়ে যায়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক লুৎফর রহমান উত্তরকালকে বলেন, জোহা হলের পাশ থেকে চার বোতল ফেন্সিডিলসহ শহীদুল্লাহ কলাভবনের প্রহরীসহ দুইজনকে আটক করেছে পুলিশ। ইতোমধ্যে প্রশাসন তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়েছে। যেহেতু অভিযুক্তরা বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তা তাই এ বিষয়টি আমরা খতিয়ে দেখব। 

পুলিশের বরাত দিয়ে প্রক্টর আরো বলেন, শহীদুল্লাহ কলাভবনের ওই প্রহরী দীর্ঘদিন থেকে ফেন্সিডিলের ব্যবসা করতো। আজ পুলিশ তাকে হাতেনাতে ধরেছে।

জানতে চাইলে কাজলা পুলিশ ফাঁড়ির ডিউটিরত পুলিশের এসআই আব্দুল মোমিন উত্তরকালকে বলেন, চার বোতল ফেন্সিডিলসহ দুই কর্মচারীকে আটক করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।