।। বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন ।।

প্রশান্ত মহাসাগরের আকাশ থেকে নিখোঁজ হওয়ার একদিন পর জাপানের একটি এফ-৩৫ যুদ্ধবিমানের ধ্বংসাবশেষ খুঁজে পেয়েছে তল্লাশি ও উদ্ধারকারী দলগুলো।

এক আসনের অত্যাধুনিক ওই যুদ্ধবিমানটি স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টা ২৭ মিনিটের দিকে রাড়ার থেকে নিখোঁজ হয় বলে বুধবার জানিয়েছে জাপানের এয়ার সেল্ফ ডিফেন্স ফোর্স (এএসডিএফ); খবর বিবিসি, বার্তা সংস্থা রয়টার্সের।

বিমানটি ওই সময় জাপানের উত্তরপূর্বাঞ্চলীয় শহর মিসাওয়া থেকে ১৩৫ পূর্বে প্রশান্ত মহাসাগরের ওপরে উড়ছিল বলে জানিয়েছেন এএসডিএফের এক মুখপাত্র। যুদ্ধবিমানটির পাইলট এখনও নিখোঁজ রয়েছেন বলে জানিয়েছেন তিনি।

মিসাওয়া বিমান ঘাঁটি থেকে উড্ডয়নের প্রায় ৩০ মিনিট পর বিমানটি যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে নিখোঁজ হয়। এক বছরের পুরনো এই বিমানটির যোগাযোগ কেন চ্ছিন্ন হল তা জানা যায়নি। বিমানটিতে এর আগে কখনো কোনো সমস্যা ধরা পড়েনি বলে জাপানের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম এনএইচকের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

সংবাদ মাধ্যম কিয়োডো জানিয়েছে, উদ্ধারকারী দলগুলো নিখোঁজ পাইলটের খোঁজে তল্লাশি চালিয়ে যাচ্ছে। ওই পাইলট চল্লিশোর্ধ বয়সী ছিলেন।

জাপান পুরনো এফ-৪ যুদ্ধবিমানগুলো সরিয়ে এফ-৩৫এস যুদ্ধবিমান মোতায়েন শুরু করেছে। যুক্তরাষ্ট্রের লকহিড মার্টিন কোম্পানির তৈরি প্রতিটি এফ-৩৫এস এর মূল্য অন্তত নয় কোটি ডলার।

উড্ডয়ন শুরু করার পর থেকে এই নিয়ে দ্বিতীয়বার আরেকটি এফ-৩৫ যুদ্ধবিমান বিধ্বস্ত হল।  

এ ঘটনার পর মিসাওয়া বিমান ঘাটিতে থাকা অবশিষ্ট ১২টি এফ-৩৫ এর উড্ডয়ন বন্ধ রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন জাপানের প্রতিরক্ষামন্ত্রী তাকেশি ইওয়াইয়া।