।। কনটেন্ট এডিটর, সোশাল মিডিয়া ডেস্ক ।।

রাজশাহী জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদের একটি ফেসবুক পোস্ট নিয়ে আলোচনার ঝড় উঠেছে রাজনৈতিক অঙ্গনে। বৃহস্পতিবার তিনি ফেসবুকে লেখেন, “রাজনীতি থেকে বিদায় নেবো কি না ভাবছি।”

তার এই স্ট্যাটাসের পর সেখানেই তার অনুসারী অনেককে মন্তব্য করতে দেখা যায়। বেশিরভাগই তাকে এমন সিদ্ধান্তের পথে না যাবার অনুরোধ করে লেখা।

আসাদুজ্জামান আসাদের ফেসবুক স্ট্যাটাস

আসাদের ঘনিষ্ঠ একাধিক সূত্র জানান, নানা অভিমান থেকেই এমন পোস্ট দিয়েছেন ছাত্রলীগের রাজনীতি থেকে উঠে আসা এই নেতা। বিশেষ করে সবশেষ সংসদ নির্বাচনে রাজশাহী-৩ আসন থেকে মনোনয়ন চেয়ে না পাওয়ার পর দলের সভাপতি ও জেলা সংসদ সদস্যদের সঙ্গে তার দূরত্ব ক্রমশ বাড়তে থাকায় তিনি অনেকটাই হতাশ।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে আসাদুজ্জামান আসাদ বলেন, “আমার সভাপতি (রাজশাহী-১ আসনের সংসদ সদস্য ওমর ফারুক চৌধুরী) পুরোপুরি স্বেচ্ছাচারিতা চালাচ্ছেন সংগঠনে। দলের লোকজন তার কারণে নির্যাতিত হচ্ছে। তিনি মিটিংও করেন না মাসের পর মাস। পার্টি অফিসেও আসেন না। এসব নিয়ে কেন্দ্রের হস্তক্ষেপ চেয়েছিলাম। সেখান থেকেও কিছু হয়নি এখনো। এমন অবস্থায় রাজনীতি করে কী লাভ?”

এব্যাপারে কথা বলতে ওমর ফারুক চৌধুরীর সঙ্গে ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা চালিয়েও তাকে পাওয়া যায়নি। তবে তার ঘনিষ্ঠ এক নেতা নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানিয়েছেন, বিভিন্ন সময়ে সাধারণ সম্পাদকের ভূমিকায় তিনি ক্ষুব্ধ।