বার্তাকক্ষ প্রতিবেদন

নওগাঁর ধামইরহাট উপজেলার জগদল আদিবাসী স্কুল ও কলেজের বাংলা বিভাগের প্রভাষক জামাল উদ্দিনের (৪৫) ভাসমান লাশ নদী থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার দুপুরে ঘুকসী নদী থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। তিনি উপজেলার সাহাপুর গ্রামের মৃত. কায়েম উদ্দিনের ছেলে।

ধামইরহাট থানার ওসি জাকিরুল ইসলাম জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরে ঘুকসী নদীর পাড়ে বনবিভাগের বাগানে পাতা ঝাড় দেওয়ার সময় স্থানীয়রা একটি লাশ নদীতে ভাসমান দেখতে পেলে থানায় খবর দেন। পুলিশ তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে এসে হাত-পায়ের সাথে রশি দিয়ে বাঁধানো অবস্থায় লাশটি উদ্ধার করে। তিনি জগদল আদিবাসী স্কুল ও কলেজের বিএম শাখার বাংলার প্রভাষক।

মৃতের বড় ভাই ওয়াদুদ জানান, তার ভাই কলেজশিক্ষক জামাল উদ্দিনের অর্ধকোটি টাকার অধিক পরিমাণ ঋণ রয়েছে এবং সম্প্রতি ৪-৫ দিন পূর্বে তিনি আবারও নিখোঁজ হন। নিখোঁজের কয়েকদিন পর আজ ঘুকসী নদী থেকে প্রভাষক জামাল উদ্দিনের লাশ উদ্ধারে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

ধামইরহাট থানার ওসি জাকিরুল ইসলাম আরো জানান, ঘটনার পর পত্নীতলা সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রফিকুল ইসলাম, ইন্সপেক্টর তদন্ত মাহবুব আলম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। লাশটির ময়না তদন্তের জন্য নওগাঁ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে আর থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুত চলছে।   

Berger Weather Coat